১৭ এর আগে মুসলিমরা হিন্দুদের সব রেশন খেত: ভোটের আগে যোগীর সাম্প্রদায়িক মন্তব্যে শোরগোল

১৭ এর আগে মুসলিমরা হিন্দুদের সব রেশন খেত: ভোটের আগে যোগীর সাম্প্রদায়িক মন্তব্যে শোরগোল

 

নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: এবার সাম্প্রদায়িকতা ছড়ানোর অভিযোগ উঠল উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী তথা বিজেপির হিন্দু্ত্বেল ‘পোস্টার বয়’ যোগী আদিত্যনাথ। রবিবার কুশিনগরে একটি জনসভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে যোগী বলেছিলেন ‘২০১৭ সালের আগে অর্থাৎ বিজেপির নেতৃত্বে যোগী আদিত্যনাথ ক্ষমতায় আসার আগে শুধুমাত্র আব্বাজান ডাক দেওয়া মানুষরাই রেশন হজম করে যেত।’ যোগীর এহেন মন্তব্যের বিরোধিতা করে সরব হয়েছেন ন্যাশনাল কনফারেন্সের নেতা ওমর আবদুল্লাহ।

 

যোগীর বক্তব্যের ক্লিপ রিটুইট করে ওমর আবদুল্লাহ ক্যাপশনে লেখেন, ‘আমি সবসময়ই বলে আসছি যে, মুসলমানদের প্রতি বিদ্বেষ এবং ঘৃণ্য সাম্প্রদায়িকতা ছাড়া অন্য কোন ইস্যুতে নির্বাচন লড়ার কোনও ইচ্ছা বিজেপির নেই। এখানে একজন মুখ্যমন্ত্রী যিনি পুনর্নির্বাচনের জন্যে লড়তে চলেছেন, তিনি দাবি করেছেন যে মুসলমানরা হিন্দুদের সমস্ত রেশন খেয়েছে।’

 

 

উল্লেখ্য, যোগী রবিবার বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী মোদীর নেতৃত্বে দেশে তোষণের রাজনীতি নেই। তবে ২০১৭ সালের আগে সবাই কি রেশন পেত? শুধু যারা আব্বাজান ডাক দেয়, তারা সব রেশন হজম করে যেত।’ মনে করা হচ্ছে ‘আব্বাজান’ উল্লেখ করে যোগী মুসলিম সম্প্রদায়কে ইঙ্গিত দিয়েছেন। কারন মুসলিমরা বাবাকে আব্বাজান বলে। এই মন্তব্যে যে সাম্প্রদায়িকতার ইঙ্গিত রয়েছে, তার বিরুদ্ধে তোপ দেগেছেন অনেকেই।