সরকারের সমালোচনা: প্রাক্তন রাজ্যপাল আজ়িজ কুরেশির বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা করল যোগী সরকার

সরকারের সমালোচনা: প্রাক্তন রাজ্যপাল আজ়িজ কুরেশির বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা করল যোগী সরকার

 

নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: বিজেপির এক নেতার অভিযোগের ভিত্তিতে উত্তরপ্রদেশের প্রাক্তন রাজ্যপাল আজ়িজ কুরেশির বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা করল যোগী সরকার। সমাজবাদী পার্টির নেতা আজম খানের বাড়ি গিয়ে উত্তরপ্রদেশের বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছিলেন কুরেশি। তার পরেই গত কাল রাতে তাঁর বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ-সহ একাধিক ধারায় মামলা করা হয়েছে।

৮১ বছর বয়সি কংগ্রেস নেতা আজ়িজ কুরেশি ২০১৪ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত মিজোরামের রাজ্যপাল ছিলেন। সেই সময়ে বেশ কিছু দিনের জন্য উত্তরপ্রদেশেরও রাজ্যপালের দায়িত্বে ছিলেন তিনি। তবে গত শনিবার সমাজবাদী পার্টির নেতা আ‌জম খানের বাড়িতে গিয়ে কুরেশি সাংবাদিকদের কাছে যোগী সরকারের বিরুদ্ধে মুখ খোলার পর বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে।

বিজেপি নেতা আকাশকুমার সাক্সেনা গত কাল রামপুরের সিভিল লাইনস থানায় অভিযোগ করেছেন, সমাজবাদী পার্টির নেতার স্ত্রীর সঙ্গে আলোচনা করার পর সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেছেন কুরেশি। সেই সময়ে তিনি যোগী সরকারের সঙ্গে রক্তচোষা দস্যুর তুলনা টেনেছেন। বিজেপির ওই নেতার দাবি, এর ফলে উত্তরপ্রদেশ সরকারের অমর্যাদাই শুধু হয়নি, প্রাক্তন রাজ্যপালের বিবৃতি সাম্প্রদায়িক উত্তেজনা ছড়াতে পারে এবং সমাজে অস্থিরতার সৃষ্টি করতে পারে বলেই মনে করছেন তিনি। বিভিন্ন চ্যানেলে সম্প্রচার হওয়া কুরেশির ওই মন্তব্য একটি পেন ড্রাইভে নিয়ে পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছেন বিজেপি নেতা।

পুলিশের শীর্ষস্থানীয় আধিকারিক জানিয়েছেন, এই অভিযোগের পরেই কুরেশির বিরুদ্ধে ধর্মের নাম করে দুই সম্প্রদায়ের মধ্যে উত্তেজনা ছড়ানোর চেষ্টা, জনগণের মধ্যে ভীতি ছড়ানোর চেষ্টা ও রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগ এনে এফআইআর করা হয়েছে। রামপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সংসার সিংহ জানিয়েছেন, বিজেপি নেতা আকাশ সাক্সেনার অভিযোগের ভিত্তিতে প্রাথমিক তদন্ত করেছে পুলিশ। তার পরেই বিভিন্ন ধারা এনে এফআইআর দায়ের করা হয়েছে।