কেরলের বিশ্ববিদ্যালয়ের সিলেবাস থেকে বাদ আরএসএসের ভিডি সাভারকর ও এমএস গোলওয়ালকরের কথা

কেরলের বিশ্ববিদ্যালয়ের সিলেবাস থেকে বাদ আরএসএসের ভিডি সাভারকর ও এমএস গোলওয়ালকরের কথা

নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: নর্থ কেরলের কান্নুর বিশ্ববিদ্যালয়ের সিলেবাস থেকে আরএসএস সম্পর্কীয় বই বাদ দেওয়া হল। ভিডি সাভারকর ও এমএস গোলওয়ালকরের কথা আর পড়ানো হবে না বিশ্ববিদ্যালয়ের পোস্ট গ্র্যাজুয়েশনে স্তরে। বৃহস্পতিবার এমন সিদ্ধান্তের কথাই জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য জানিয়েছেন, ‘গত বছরের সিলেবাস এবারও চলবে। তবে সিলেবাসে রদবদলের ব্যাপারে সরকার দুই সদস্যের কমিটি ঠিক করে দিয়েছিল।’ এদিকে সিলেবাস নিয়ে আপত্তি তুলে আন্দোলনে নেমেছিল কংগ্রেসের ছাত্র সংগঠন, মুসলিম লীগের ছাত্র সংগঠন। তারা বইয়ের কপিও পুড়িয়ে দেয়।

এসএফআই ও বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য কার্যত একই সুরে দাবি করেছিলেন এটা পোস্ট গ্র্যাজুয়েশন স্তরে পড়ানো হচ্ছে। আদর্শের ভালো মন্দ সম্পর্কে ছাত্রছাত্রীরা বুঝতে পারবেন। কংগ্রেস সাংসদ শশী থারুর ও গভর্নর আরিফ মহম্মদ খানও জানিয়েছিলেন,’ রাজনীতির নাম করে বৌদ্ধিক স্বাধীনতা কেড়ে নেওয়া উচিত নয়।’

শশী থারুর জানিয়েছিলেন, ‘যদি আপনি তাঁদের বই না পড়েন তবে কিসের ভিত্তিতে সেই আদর্শের বিরোধিতা করবেন।’ রাজ্যপাল জানিয়েছিলেন, ‘ছাত্রছাত্রীদের সমস্ত রকম আদর্শ সম্পর্কিত বই পড়া দরকার। এরপর তাঁরা সিদ্ধান্ত নেবেন। ভারত একটি মুক্তচিন্তার দেশ। কোনও বইকে এখানে নিষিদ্ধ করা উচিৎ নয়।’

প্রসঙ্গত বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে খবর, ভিডি সাভারকরের Who is Hindu? গোলওয়ালকরের ‘We or our Nationhood defined’, দীনদয়াল উপাধ্যায়ের Integral Humanism, এবং Balraj Madhok এর Indianisation, What, Why and How সিলেবাসের অন্যান্য ৩০টি বইয়ের সঙ্গেই সংযুক্ত ছিল।

‘হিন্দুত্ববাদের জনক’ সাভারকর ছিলেন ‘ব্রিটিশ এজেন্ট’, বললেন সুপ্রিমকোর্টের প্রাক্তন বিচারপতি কাটজু