মহাত্মা গান্ধীর প্রয়াণ দিবসে অনশনে আন্দোলনরত কৃষকরা: প্রতিমূহুর্তে বাড়ছে কৃষকদের সংখ্যা

    মহাত্মা গান্ধীর প্রয়াণ দিবসে অনশনে আন্দোলনরত কৃষকরা: প্রতিমূহুর্তে বাড়ছে কৃষকদের সংখ্যা

    নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: আজ ৩০ জানুয়ারি মহাত্মা গান্ধীর প্রয়াণ দিবস। এই দিনটিকে ‘সদ্ভাবনা দিবস’ হিসেবে পালন করে সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত অনশনে রয়েছেন আন্দোলনরত কৃষকরা। সিংঘু সীমান্তে সাংবাদিক সম্মেলনে কৃষক নেতারা দেশের মানুষকে তাঁদের আন্দোলনে সামিল হওয়ার অনুরোধ জানালেন। এরই মধ্যে হিংসা ছড়ানোর দায়ে ৪৪ কৃষককে গ্রেপ্তার করেছে দিল্লি পুলিশ।

     

    আন্দোলনকে আরও ব্যাপকতা দিতে পঞ্জাব এবং হরিয়ানা থেকে কাতারে কাতারে কৃষক দিল্লি সীমান্তে হাজির হচ্ছেন। শিরোমণি অকালি দল এবং ইন্ডিয়ান ন্যাশনাল লোকদল (আইএনএল) ইত্যাদি রাজনৈতিক দলও তাঁদের সমর্থন করছে। কৃষক নেতাদের দাবি, হরিয়ানার জিন্দ, হিসার, ভিওয়ানি, রোহতক সহ একাধিক জেলা থেকে কৃষকরা দিল্লির উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন। হরিয়ানার খাপ পঞ্চায়েতগুলোও বৈঠকের পর কৃষি আন্দোলনের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে, দাবি এমনটাও।

    বহু গ্রাম থেকে ট্রাক্টর মিছিল রাজধানীর দিকে আসছে বলেও জানানো হয়। এদিকে পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং বলছেন, ‘লালকেল্লার ঘটনা নিয়ে কৃষকদের বিরুদ্ধে যে অপপ্রচার চলছে তা বন্ধ হওয়া উচিত। যা হচ্ছে এবং সিংঘু সীমান্তে যা হয়েছে, পাকিস্তান সেটাই চায়।’ কংগ্রেস নেতা দীপেন্দ্র সিং হুড্ডা গাজিপুর সীমান্তে গিয়ে কৃষক নেতা রাকেশ টিকায়েতের সঙ্গে দেখা করে তাঁদের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছেন। অর্থাৎ, পুলিশ প্রশাসন যতই কড়া অবস্থান নিক, কৃষি আন্দোলন আরও ব্যাপক মাত্রা নিতে চলেছে