টেস্টকে আলবিদা মহম্মদ আমিরের !

টেস্টকে আলবিদা মহম্মদ আমিরের !

নিউজ ডেস্ক,বঙ্গ রিপোর্ট:বয়স মাত্র 27 কিন্তু কি হলো মোহাম্মদ আমিরের যে এত তাড়াতাড়ি টেস্ট থেকে অবসর নিতে হলো ? তার এই সিদ্ধান্ত ক্রিকেট বিশ্বকে অবাক করেছে।কিছুতেই মেনে নিতে পারছে না ক্রিকেটপ্রেমীরা।২০০৯ সালের জুলাই মাসে গলে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে টেস্ট ম্যাচে অভিষেক হয় এই বাঁহাতি পেস বোলারের।

শরুতেই নজর কাড়েন আমির। কিন্তু পরের বছরই লর্ডসে টেস্ট ম্যাচ চলাকালীন স্পট ফিক্সিং-এর অভিযোগ আসে তাঁর বিরুদ্ধে।পাঁচ বছরের জন্য ক্রিকেট থেকে নির্বাসন দেওয়া হয় আমিরকে। নির্বাসন কাটানোর পর ফের দলে সুযোগ পান আমির। ৩৬ টেস্টে ৩৭.৪০ অ্যাভারেজে মোট ১১৯টি উইকেট নিয়েছেন।বিশ্বকাপেও ভালো পারফর্ম করেছেন মহম্মদ আমির।

শুক্রবার এই কথা ঘোষণা করে পাক ক্রিকেট বোর্ড।পাক বোর্ডর তরফে আমিরের বক্তব্য জানানো হয়েছে। বোর্ডকে লেখা মেলে তিনি বলেন, “পাকিস্তান ক্রিকেটের হয়ে সব ধরণের ক্রিকেটে খেলতে পারাটা গর্বের। আমি টেস্ট ক্রিকেট থেকে অবসর নিতে চাই। যাতে সাদা বলের ক্রিকেটে মন দিতে পারি। দেশের হয়ে খেলাটাই আমার একমাত্র লক্ষ্য ছিল। আমি সবসময় নিজের সবটা দিয়েই খেলার চেষ্টা করেছি। আমি আশা করছি, আগামী দিনেও খেলার সময় আমি পুরো ফিট থাকতে পারব। সামনের বছর টি ২০ বিশ্বকাপ আমার প্রধান লক্ষ্য।”

আমির আরও জানিয়েছেন, “অবসর নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া সহজ ছিল না। আমি বেশ কিছুদিন ধরেই এই ব্যাপারে চিন্তা করছিলাম। সামনেই আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু হচ্ছে। এই মুহূর্তে পাকিস্তানে অনেক ভালো পেস বোলার আছেন। তাই আমার মনে হয়েছে এটাই সরে যাওয়ার সেরা সময়। তাই আমি সরে যাচ্ছি।

আমি আমার দলের ক্রিকেটার, বিপক্ষ ক্রিকেটারদের ধন্যবাদ জানাই। তাঁদের সঙ্গে খেলতে পেরে আমি গর্বিত। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডকেও আমি ধন্যবাদ জানাই। আমাকে দলে সুযোগ দেওয়ার জন্য। আমার উপর বিশ্বাস রাখার জন্য।”
২০১৯-এর জানুয়ারি মাসে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে মহম্মদ আমির পাকিস্তানের হয়ে তাঁর শেষ টেস্ট ম্যাচটি খেলেছিলেন। তিনি
নিয়েছিলেন মোট চারটি উইকেট।