প্রাথমিকের প্রশ্নভুল সংক্রান্ত মামলায় পর্ষদ সভাপতি মানিক ভট্টাচার্যকে জরিমানা হাইকোর্টের

প্রাথমিকের প্রশ্নভুল সংক্রান্ত মামলায় পর্ষদ সভাপতি মানিক ভট্টাচার্যকে জরিমানা হাইকোর্টের

নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: আজ প্রাথমিকের প্রশ্নভুল সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ মামলার রায় দিল কলকাতা হাইকোর্ট। বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের বেঞ্চে প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগের গুরুত্বপূর্ণ এই মামলার ফাইনাল অর্ডার আজ দুপুরের দিকে ঘোষণা হল। মামলাটি ১৭ নম্বর কোর্টের ১ নম্বর সিরিয়ালে ছিল। যাঁরা ভুল প্রশ্নগুলো উত্তর দিয়েছিলেন এবং পিটিশনার ছিলেন তাঁদের জন্য ভালো খবর।

প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ সভাপতি মানিক ভট্টাচার্যকে জরিমানার নির্দেশ দিল কলকাতা হাইকোর্ট। মামলাকারীদের হেনস্থার অভিযোগে ২০ হাজার টাকা করে দেওয়ার নির্দেশ হাইকোর্টের। ১৯ মামলাকারীকে ২০০০০ টাকা করে মোট ৩৮০০০০ টাকা জরিমানা দিতে হবে পর্ষদ সভাপতিকে। আর তাঁকে ব্যক্তিগতভাবেই এই ক্ষতিপূরণ দিতে হবে।আজ আদালত নির্দেশ দিয়েছে, ভুল প্রশ্নগুলোতে যারা উত্তর দিয়েছিলেন তাঁদের প্রাপ্ত নম্বর দিতে হবে। মামলাকারীদের দিতে হবে ৬ নম্বর। পাস করলে ইন্টারভিউ এর সুযোগ দিতে হবে।

এই নম্বর পাওয়ার পর যারা টেট পাস করবেন তাঁদের সার্টিফিকেট দিতে হবে এবং যত দ্রুত সম্ভব এদেরকে ইন্টারভিউ নিয়ে নিয়োগ দিতে হবে। আদালত নজর রাখছে, যত দ্রুত সম্ভব আদালতের এই নির্দেশ কার্যকর করতে হবে। এদিনের নির্দেশে বলা হয়েছে, ৭ দিনের মধ্যে মামলাকারীদের ফুল মার্কস দিতে হবে। সেই মার্কস দেওয়ার পর ৭ দিনের মধ্যে নিয়োগ সংক্রান্ত বিবেচনা করে দেখতে হবে। নিয়ম মাফিক চাকরিও দিতে হবে ৭ দিনের মধ্যে। আজ চাকরি প্রার্থীদের পক্ষে এই গুরুত্বপূর্ণ রায় আদালতের।