তৃণমূলের তারকা প্রচারকদের তালিকা থেকে বাদ নুসরত জাহান

তৃণমূলের তারকা প্রচারকদের তালিকা থেকে বাদ নুসরত জাহান

 

নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: ভবানীপুরের উপ নির্বাচন ঘোষণা হতেই শহরে ভোটের উত্তাপ বাড়ছে। ইতিমধ্যেই ওই কেন্দ্রে ভোট প্রচার শুরু করেছে তৃণমূল। চলতি সপ্তাহ থেকে প্রচারে নামছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু তৃণমূলের তারকা প্রচারকের তালিকা থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে নুসরতকে। গত বিধানসভা ভোটের আগে তৃণমূলের তারকা প্রচারকদের তালিকায় ছিল বারবার বিবাহ, সন্তান, সহবাস সঙ্গী নিয়ে বারবার চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে থাকা বসিরহাটের সাংসদ নুসরত জাহান। তৃণমূলের তরফে এই সাংসদের বিরুদ্ধে সরাসরি কেউ মন্তব্য না করলেও তাকে নিয়ে দলযে একটা অসস্তিতে রয়েছে তার মনে করছে রাজনৈতিক মহল।

 

এদিকে সোমবারই প্রকাশিত হল তৃণমূলের তারকা প্রচারকের নতুন তালিকা। তাৎপর্যপূর্ণভাবে সেই তালিকা থেকে বাদ পড়লেন অভিনেত্রী নুসরত জাহান।

 

তালিকায় রয়েছেন তৃণমূলের ২০ জন নেতা-নেত্রী। তাদের মধ্যে রয়েছেন সায়নী ঘোষ, জুন মালিয়া, দেব, মিমি চক্রবর্তী, শতাব্দি রায়, রাজ চক্রবর্তীরা। যেখানে নাম নেই নুসরত জাহান এর।

 

এছাড়া তালিকায় রয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং সুব্রত বক্সি, পার্থ চট্টোপাধ্যায়, অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, সুব্রত মুখোপাধ্যায়, সৌগত রায়, ফিরহাদ হাকিম, অরূপ বিশ্বাস, চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য, কুনাল ঘোষ, সুখেন্দুশেখর রায়, মনোজ তিওয়ারি, শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়রা।

 

ইতিমধ্যে রাজ্যে উপ নির্বাচনের দিন ঘোষণা হওয়ার পর ভবানীপুরে যেন উৎসবের আমেজ শুরু হয়েছে। সেখানে তৃণমূল কর্মীরা রাস্তায় বেরিয়ে পড়েছে। মূলত প্রচার কাজে তাঁরা নেমে পড়েছে। চারিদিকে ব্যানার ,ফেস্টুন ছেয়ে গেছে। এদিকে প্রতিটা ব্যানারেই লেখা ‘ভবানীপুরে দিদিকেই চায়’ ।

 

আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর ভবানীপুর বিধানসভা কেন্দ্রে উপ-নির্বাচন। একই দিনে ভোট হবে সামসেরগঞ্জ এবং জঙ্গিপুরে। ৩ কেন্দ্রেই ভোট গণনা ৩ অক্টোবর। গত বিধানসভা ভোটে ভবানীপুরে প্রার্থী হয়েছিলেন শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়। তিনি গত ২১ মে বিধায়ক পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন।

 

২০২১ বিধানসভা ভোটের আগে সামশেরগঞ্জ, জঙ্গিপুর এই দুই কেন্দ্রের প্রার্থীর মৃত্যু হওয়ায় ভোট হয়নি। এই দুই কেন্দ্রে ৩০ সেপ্টেম্বর ভোটগ্রহণ করা হবে। তিনটি আসনেই ১৩ সেপ্টেম্বর মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষ দিন। ১৬ সেপ্টেম্বর মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন। ভোট গণনা ৩ অক্টোবর।