শিক্ষককে পুলিশি হেনস্থা: প্রতিবাদে রাজনগর থানায় অবস্থান বিক্ষোভ ও স্মারকলিপি শিক্ষকদের

    শিক্ষককে পুলিশি হেনস্থা: প্রতিবাদে রাজনগর থানায় অবস্থান বিক্ষোভ ও স্মারকলিপি শিক্ষকদের

    মহঃ সফিউল আলম, বঙ্গ রিপোর্ট, বীরভূম: রাজনগর থানার খোদাইবাগ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এক শিক্ষকের বাইক দাঁড় করিয়ে কাগজপত্র পরীক্ষার সময় বাইকের পিছনে বসা মহিলার হেলমেট না থাকার কারণকে ঘিরে দায়িত্বে থাকা পুলিশ অফিসারের সঙ্গে ওই শিক্ষকের তর্কবিতর্ক শুরু হয়৷ পরে ওই অফিসার শিক্ষককে হেনস্থা করেন বলে অভিযোগ৷ এমনকি ওই শিক্ষককে পুলিশের গাড়িতে তুলে রাজনগর থানায় আনা হয়৷ তাঁর মোবাইল ফোনও কেড়ে নেওয়া হয় বলে অভিযোগ৷ ঘটনাটি ঘটে গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে৷

    এর প্রতিবাদে বুধবার বিকেলে রাজনগর থানায় রাজনগর ব্লক তৃণমূল প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির পক্ষ থেকে অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচী পালন করা হয়৷ স্মারকলিপিও জমা দেন তাঁরা৷ ওসির উপস্থিতিতে বিষয়টির নিষ্পত্তি হয়েছে বলে জানা গিয়েছে৷ শিক্ষক সংগঠনের প্রতিনিধিদের দাবি, যে অফিসার শিক্ষককে হেনস্থা করেছিলেন তিনি ভুল স্বীকার করেন ও দুঃখ প্রকাশ করেন৷ তবে এক্ষেত্রে ওসির তৎপরতা ও ভূমিকার প্রশংসা করেন শিক্ষকরা৷

    শিক্ষক সংগঠন সূত্রে খবর, মঙ্গলবার বিকেলে ঘটনাটি ঘটে রাজনগর ডাকবাংলোর পরে হজরত সাহেবের আখড়ার কাছে৷ অভিযোগ ওঠে পুলিশ এক একজনের ক্ষেত্রে এক এক রকম আইনি ব্যবস্থা নিচ্ছে গাড়ির কাগজপত্র পরীক্ষার সময়৷ ওই শিক্ষক তারই প্রতিবাদ করেছিলেন৷

    মোবাইলে কিছুটা রেকর্ড করার চেষ্টা করতে যান তিনি৷ এরপরই রোষ নজরে পড়েন পুলিশের৷ বুধবার শতাধিক শিক্ষক অবস্থান বিক্ষোভ দেখান ও কয়েকজন প্রতিনিধি স্মারক লিপি জমা দিতে যান৷ ওসি তাঁদের সঙ্গে ভাল ব্যবহার করেছেন এবং বিষয়টি আজ মিটে যায়৷ তারপরই শিক্ষকরা অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচী প্রত্যাহার করে নেন৷ ওই অফিসারও তাঁর ভুল স্বীকার করে নেন বলে জানান শিক্ষকরা৷ যদিও এবিষয়ে পুলিশের প্রতিক্রিয়া পাওয়া সম্ভব হয়নি।