টুপি পরা মুসলিম বলে দল আমাকে আর প্রার্থী করিনি: দল ছাড়ার ঘোষণা দিয়ে বিস্ফোরক মইনুদ্দিন শামস

    • টুপি পরি ও অনুব্রত মণ্ডলকে তোলা তুলে টাকা দিতে পারিনি বলে বলে টিকিট দেয়নি দল: ক্ষোভ মইনুদ্দিন সামসের

    নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: অনুব্রত মণ্ডলকে তোলার টাকা দিতে পারিনি বলে টিকিট পাইনি, দাবি নলহাটির বিদায়ী বিধায়কের। তৃণমূলের প্রার্থীতালিকা ঘোষণা হতেই বিক্ষোভ দেখা দিয়েছে জেলায় জেলায়। প্রার্থীতালিকা থেকে ২৭ জন বিধায়কের নাম বাদ দিয়েছে ঘাসফুল শিবির। তাদের অধিকাংশই দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন। এক কদম এগিয়ে দল ছাড়ার ঘোষণা করলেন নলহাটির বিদায়ী বিধায়ক প্রাক্তন খাদ্য মন্ত্রী কলিমুদ্দিন শামস এর পুত্র মইনুদ্দিন সামস। তাঁর অভিযোগ, পাথর খাদান, বালি মাফিয়াদের কাছ থেকে তোলা তুলে অনুব্রত মণ্ডলকে দিতে পারিনি বলে টিকিট দেয়নি তৃণমূল।

    শুক্রবার তৃণমূলের প্রার্থীতালিকা ঘোষণা হলে দেখা যায় নলহাটি কেন্দ্রে প্রার্থী হয়েছেন পুরসভার পুরপ্রধান রাজেন্দ্র প্রসাদ সিং। সঙ্গে সঙ্গে উৎসবে মাতেন তাঁর অনুগামীরা। উলটো দিকে ফেসবুক লাইভে বসেন বিদায়ী বিধায়ক মইনুদ্দিন সামস। তিনি বলেন, ‘আমি কোনওদিন বালিমাফিয়া, কয়লা মাফিয়া, পাথর মাফিয়াদের সঙ্গে আপোস করিনি। সব থেকে বড় অপরাধ, আমি মুসলমান। আমি টুপি পরি। এই আমার সব থেকে বড় অপরাধ। আমাকে টুপি পরতে বারণ করেছিল’।

    মইনুদ্দির সাহেবের অভিযোগ, ‘আমি নলহাটি ছাড়বো না। আমি আজ সংকল্প নিচ্ছি, আমি নলহাটিকে সমস্যামুক্ত বিধানসভা কেন্দ্র হিসাবে গড়ে তুলবো। আমি আগামী নির্বাচন এখান থেকেই লড়বো। আমি কোন দল থেকে কী ভাবে লড়বো, তা দু দিনের মধ্যে জানাবো। আমি আজ তৃণমূল কংগ্রেস থেকে পদত্যাগ করছি’।