“পাকিস্তান চলে যাও”- বলা উত্তর প্রদেশ পুলিশের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানালেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মুক্তার আব্বাস

“পাকিস্তান চলে যাও”- বলা উত্তর প্রদেশ পুলিশের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানালেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মুক্তার আব্বাস

নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: উত্তরপ্রদেশের এক পুলিশর্তা কয়েকদিন আগেই এক সাম্প্রদায়িক আবেগে আঘাতকারী মন্তব্য করেন। ‘পাকিস্তান চলে যাও’ , পুলিশ কর্তার এই মন্তব্য নিয়ে রীতিমতো তোলপাড় গোটা দেশ। এরপরই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মুক্তার আব্বাস নকভি বলেন গোটা বিষয়টি নিয়ে ‘আপৎকালীন পরিস্থিতিতে’ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পুলিশকর্তার বিরুদ্ধে নেওয়া হবে ব্যবস্থা।

মন্ত্রী মুক্তার আব্বাস নাকভি বলেন, ‘ হিংসা কোনও পর্যায়তেই বরদাস্ত করা হবে না। এটা পুলিশই হোক বা জনতা। তা কোনও মতেই মেনে নেওয়া হবে না। এটা গণতান্ত্রিক দেশের অঙ্গ হতে পারেনা।’

যোগীরাজ্য উত্তরপ্রদেশের এক এসপিকে দেখা যায় ক্যামেরার সামনেই তিনি বিক্ষোভকারীদের বলছেন পাকিস্তান চলে যাও। গত ২০ ডিসেম্বরের ঘটনার সেই ফুটেজ ভাইরাল হতেই তা নিয়ে শুরু হয়ে যায় শোরগোল। দেখা যায় পুলিশকর্তা স্থানীয় বাসিন্দাদের বলছেন, তাঁরা যেন নিজের প্রতিবেশীদের বলে দেন , পাকিস্তানে চলে যেতে।

এদিকে, উত্তর প্রদেশের ওই পুলিশকর্তার সমর্থনে এগিয়ে আসেন মেরঠের অ্যাডিশনাল ডিরেক্টর জেনারেল। তিনি বলেন, ‘শব্দের বাছাই’ য়ের ক্ষেত্রে ভুল করে ফেলেছেন এসপি। তাঁর দাবি, সেই সময় পুলিশের ওপর পাথর ছোড়া হচ্ছিল। পরিস্থিতি উত্তপ্ত ছিল।